বাংলার রঙ্গমঞ্চে প্রতারক শিল্পী

বাংলার রঙ্গমঞ্চে আসছেন প্রতারক শিল্পী। তাই নিয়ে এবারে উদ্ভাসের প্রতিবেদন

বাংলার রঙ্গমঞ্চে প্রতারক চিত্রশিল্পী! চমকে ওঠার মতোই খবর। যাঁরা চিত্রকলা সম্পর্কে উৎসাহী তাঁরা অনেকেই চেনেন সেই শিল্পীকে। তাঁর নাম হান ভাঁ মীগেরেঁ। no frame self-portrait-age-about-35জন্মসূত্রে তিনি হল্যান্ডের অর্থাৎ রেমব্রান্ট, ভেরমেয়ার, ভ্যান গঘের দেশের মানুষ। মীগেরেঁ যে বছর জন্মেছিলেন সে বছর পৃথিবীতে এসেছিলেন অ্যাডলফ্ হিটলার ও চার্লি চ্যাপলিনও। ছোটবেলা থেকেই ছবি আঁকতে ভালোবাসতেন মীগেরেঁ। বাবা ছিলেন বদমেজাজী স্কুলশিক্ষক, তাঁকে লুকিয়ে মায়ের প্রশ্রয়েই শৈশবে তাঁর যাবতীয় ছবি আঁকাআঁকি। ছাত্রজীবনে চিত্র প্রতিযোগিতায় তিনি পেয়েছিলেন স্বর্ণপদকও। তবু কী দুর্ভাগ্য, চিত্রশিল্পী হিসেবে কখনও খ্যাতির মুখ দেখতে পাননি মীগেরেঁ। হয়তো ভ্যান গঘের মতোই জীবন হত তাঁর, হয়তো তাঁর শিল্পকর্মের সমাদর হত মৃত্যুর পরে। কিন্তু নিজের ব্যর্থতাকে তিনি নীরবে মেনে নিতে পারেননি আর পাঁচজন শিল্পীর মতো। পরিবর্তে তিনি যাত্রা করেছিলেন এক বিচিত্র পথে। সে পথ ছিল প্রতিশোধের। যে সমাজ সম্ভাবনাময় নবীন চিত্রশিল্পীদের কাজের স্বীকৃতি দেয় না, কলাসমালোচক নামধারী যে সব নাক উঁচু মানুষের দয়ার ওপর নির্ভর করে শিল্পীদের ভাগ্য — সেই সমাজব্যবস্থা ও কলাবিশেষজ্ঞদের মুখে পদাঘাত করেছিলেন মীগেরেঁ। পরিণামে কী হয়েছিল? Fake Vermeerচিত্রশিল্পীর বদলে প্রতারকের পরিচয়ে দুনিয়া চিনেছিল তাঁকে। যদিও প্রতারক হয়েও মীগেরেঁ লাভ করেছিলেন এক দুর্লভ সম্মান। লাঞ্ছিত-নিপীড়িত শিল্পীদের অন্তরের প্রতিনিধি হয়ে উঠতে পেরেছিলেন তিনি তাঁর জীবনকালেই। শিল্পীর জীবনকে প্রতিবাদের অস্ত্রে পরিণত করে তোলার সেই আশ্চর্য রোমাঞ্চকর কাহিনী নিয়ে বাংলায় একটি অসামান্য উপন্যাস লিখেছিলেন নারায়ণ সান্যাল। ‘প্রবঞ্চক’ নামে তাঁর সেই কাহিনীটি বই আকারে প্রথম প্রকাশিত হয় ১৯৭৮ সালে। সেই বইয়ের প্রচ্ছদে আজও সজীব হয়ে আছে খালেদ চৌধুরীর আঁকা মীগেরেঁর প্রতিকৃতিচিত্র। লাইব্রেরি ও ব্যক্তিগত সংগ্রহের মাধ্যমে নারায়ণ সান্যালের ‘প্রবঞ্চক’ বইটি পড়েছেন লক্ষাধিক মানুষ। কিন্তু তারপর …?

না, ঘটনা এখানেই শেষ নয়। উপন্যাসের পৃষ্ঠাকে এবারে Cover of Probonchokজীবন্ত করে তোলার প্রচেষ্টায় এগিয়ে এসেছেন বহরমপুরের নাট্যদল ‘রঙ্গাশ্রম’। বিগত দেড় বছরের প্রাণপাত পরিশ্রমে তাঁরা নির্মাণ করেছেন একটি নতুন নাটক ‘প্রতারক’। নাট্যরচনা কৌশিক চট্টোপাধ্যায়, নির্দেশনা সন্দীপ ভট্টাচার্য। বলা বাহুল্য কোনও আবেগপ্রবণ শিল্পীজীবনের চেনাছকের প্রেমকাহিনী নয় এ নাটক। বরং এ হল ইতিহাসনিষ্ঠ গবেষণার মধ্য দিয়ে উঠে আসা এক রোমাঞ্চকর থ্রিলার। যা কিনা দেখতে দেখতে দর্শক হয়তো ভুলেই যাবেন তাঁর নিজস্ব অস্তিত্ব। রঙ্গাশ্রম-এর পরিচালক আমাদের জানিয়েছেন — এই নাটক নির্মাণ করতে গিয়ে তাঁদের শ্রম ও একাগ্রতার কথা। একটি তথ্যনিষ্ঠ অথচ জনপ্রিয় উপন্যাসকে নাটকে রূপান্তরিত করতে গেলে যা যা প্রয়োজন তার কোনওকিছুরই বাদ রাখেননি তিনি। নাটকের প্রয়োজনে অভিনেতাদের নিয়ে একাধিক ওয়র্কশপ হয়েছে, হয়েছে আর্ট-অ্যাপ্রিসিয়েশনের ক্লাশও। নাটকের কলাকুশলীরা জেনেছেন চিত্রকলার ইতিহাস, শিল্পীদের কথা। এমনকি তাঁরা শিখেছেন কীভাবে দেখতে হয় ছবিকে। Bengali Posterযেহেতু মফঃস্বলের দল, প্রতিষ্ঠিত অভিনেতার একান্ত অভাব, অভাব প্রয়োজনীয় পরিকাঠামোরও, সেক্ষেত্রে পরিচালকের কাজটি ছিল রীতিমত কঠিন। তবু চেষ্টার ত্রুটি করেননি তিনি। চিত্রশিল্পের ওপর গবেষণা ছাড়াও নাট্যকাহিনির সামাজিক ও সাংস্কৃতিক প্রেক্ষাপটের দাবি অনুযায়ী পোষাক পরিকল্পনা, আবহসঙ্গীত সবকিছু নিয়েই ভেবেছেন তিনি। এছাড়াও মাল্টিমিডিয়া ও কম্পিউটর গ্র্যাফিক্সের অভিনব কিছু প্রয়োগও তিনি করেছেন এই নাটকে।

আগামী ২৮ সেপ্টেম্বর ২০১৪ রবিবার সন্ধ্যেয় কলকাতার জ্ঞানমঞ্চে এই নাটকের প্রথম শো। রঙ্গাশ্রমের আশা ‘প্রতারক’-এর টানে সেদিন প্রেক্ষাগৃহে চিত্রপ্রেমী ও নাট্যপ্রেমীদের এক মহামিলন হবে। আশাবাদী আমরাও একটি অসামান্য নাটকের আত্মপ্রকাশের জন্য।10

চিত্র পরিচিতি : ১। মীগেরেঁর আত্মপ্রতিকৃতি; ২। মীগেরেঁর আঁকা জাল ছবি; ৩। ‘প্রবঞ্চক’ বইয়ের প্রচ্ছদ; ৪। নাটকের পোস্টার; ৫। নাটকের অভিনয় দৃশ্য।

This entry was posted in Cultural journey and tagged , , . Bookmark the permalink.

6 Responses to বাংলার রঙ্গমঞ্চে প্রতারক শিল্পী

    • Mrinal Nandi বলেছেন:

      Sorry for your problem. But as per our provider’s report the problem is in your browser or computer system. To avoid the problem please follow the steps :
      1. Clear the cache memory of your browser and try again.
      2. If problem persist please try another browser to open our site.
      3. You may update your browser version to avoid the problem.
      4. If no problem found in your browser then try to check your computer system for local language setting including asian language and use open type bengali font like vrinda, kalpurush etc.
      5. If you are using opera mini in your phone or tab then try this:
      5.(i) Type “about:config” in opera mini’s address bar.
      5. (ii) The screen will come with some configuration settings. Go to the end position by scrolling the screen.
      5. (iii) Find the option “Use bitmap fonts for complex scripts” with a box. Go to the box and choose the option “Yes”. And save the setting.
      5. (iv) Now open our site and the problem should be solved.
      If the problem continuing after following the steps don’t hesitate to contact us via e-mail at : nandimrinal@gmail.com
      Good day,
      Mrinal Nandi
      Udvas

  1. মাম্পি বলেছেন:

    দুর্দান্ত খবর। কলকাতার বাইরে কোথাও কি দেখার সুযোগ হবে? বহরমপুরের দল যখন তখন বহরমপুরে কি দেখতে পাবো এই নাটক? কবে, কোথায় জানাবেন।

  2. অয়ন জোয়ারদার বলেছেন:

    রঙ্গাশ্রমের নাট্য উৎসবের প্রথম দিন অর্থাৎ ২০ নভেম্বর এই ‘প্রতারক’-এর অভিনয় হবে বহরমপুর রবীন্দ্র সদনে।

  3. স্বপন সোম বলেছেন:

    বাংলার নাট্যমঞ্চে মিগেরেঁ আসছেন জেনে অপেক্ষা বাঁধ মানছে না। এই নাটকটি কিভাবে তৈরী হয়ে উঠলো তার ভেতরের কাহিনী জানতে ইচ্ছে করছে খুব।
    — স্বপন সোম

  4. Prakash Das Biswas বলেছেন:

    20.11.14 working day.Baharampure thaka hobe na. Natakta ebar miss korbo jene kharap lagche.

অয়ন জোয়ারদার শীর্ষক প্রকাশনায় মন্তব্য করুন জবাব বাতিল

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out /  পরিবর্তন )

Google photo

You are commenting using your Google account. Log Out /  পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out /  পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out /  পরিবর্তন )

Connecting to %s

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.